পিরোজপুর অগ্রণী ব্যাংক লিমিটেড মেইন রোড শাখা কর্তৃক “প্রবাসীর ঘরে ফেরা ঋণ বিতরণ”

পিরোজপুর প্রতিনিধি : কোভিড-১৯ এর প্রভাবে ক্ষতিগ্রস্থ বিদেশ ফেরৎ বৈদেশিক রেমিটেন্স প্রেরণ কারীগণকে ক্ষুদ্র ব্যবসাও আতœকর্মসংস্থান মূলক কর্মকান্ডে নিয়োজিত হওয়ার ক্ষেত্রে আর্থিক সহায়তা প্রদানের মাধ্যমে সমাজে প্রতিষ্ঠিত করার লক্ষে অগ্রণী ব্যাংক লিমিটেড “প্রবাসীর ঘরে ফেরা ঋণ” নামে নতুন নীতিমালা প্রনয়ন করে। এরই ধারাবাহিকতায় মঙ্গলবার বিকেলে পিরোজপুর অগ্রণী ব্যাংক লিমিটেড মেইন রোড শাখা পিরোজপুর শহরের কাপুড়িয়াপট্টির মেসার্স মায়ের স্বপ্নগার্মেন্টস এন্ড টেইলার্স-কে “প্রবাসীরঘরে ফেরা ঋণ এর ৩ লাখ টাকার চেক তুলে দেয়া হয়। 

ঋণের সুবিধাভোগীও কোভিড-১৯ এর প্রভাবে বিদেশ ফেরৎ গ্রাহক জনাব এনামুল কবিরের অনুভুতি জানতে চাইলে তিনি বলেন বিষয়টি আমার কাছে স¦প্নের মতো লাগছে। মাত্র চব্বিশ ঘন্টার মধ্যে ঋণ পাওয়া যায় এটা আমার ধারণাতেই ছিলোনা। তিনি অগ্রণী ব্যাংকের এমডি ও সিইও সহ সংশ্লিষ্ট সকলের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

এ বিষয়ে পিরোজপুর অগ্রণী ব্যাংক লিমিটেড মেইন রোড শাখার ব্যবস্থাপক মোস্তাফিজুর রহমান বলেন বঙ্গবন্ধু কর্ণানের নন্দিত উদ্ভাবক, অগ্রণী ব্যাংক লিমিটেড এর এমডি ও সিইও মোহম্মদ শামস্-উল ইসলাম মহোদয় সামাজিক দায়বদ্ধতা থেকে ও দেশ প্রেমে উদ্বুদ্ধ হয়ে এ বিশেষ ঋণটি সারা দেশব্যাপী বিতরণের নির্দেশনা প্রদান করেছেন”। তারই অংশ হিসেবে আমাদের শাখারপক্ষ থেকে মঙ্গলবার বিকেলে পিরোজপুরস্থ কাপুড়িয়াপট্টির মেসার্স মায়ের স্বপ্ন  গার্মেন্টস্ এন্ড টেইলার্স-কে “প্রবাসীরঘরে ফেরা ঋণ বিতরণ” করা হয়েছে।